Sanju Rauth : আমার সম্পর্কে কিছু কথা – যেটা আপনি জানতে পারেন

নমস্কার বন্ধুরা। আশা করি সকলেই ভাল আছেন। আজকের এই পোস্টটিতে আমি আপনাদের, আমার সম্পর্কে কিছু কথা জানাবো। যেটা পড়বার পর আপনি আমার সম্পর্কে অনেক কিছু জানতে পারবেন। এবং আমার এই ব্লগটি বানানোর উদ্দেশ্য কি – এই সম্পর্কেও আজ আমি আপনাদের বলব। এবং এর সাথে সাথে আমার সম্পর্কে আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নের উত্তর আমি এখানে শেয়ার করব।

যদি আপনি আমার সম্পর্কে কিছু জানতে চান তাহলে এই আর্টিকেলটি পড়তে পারেন। আশা করছি আর্টিকেলটি আপনার ভালো লাগবে।

আমি কে?

যদি আপনি আমার ব্লগ টি ফলো করেন, তাহলে আপনি আমার সম্পর্কে অবশ্যই জেনে থাকবেন।

Sanju Rauth : আমার সম্পর্কে কিছু কথা - যেটা আপনি জানতে পারেন

তবুও যারা নতুন তাদের উদ্দেশ্যে আমি বলে রাখি, আমার নাম হলো সঞ্জু রাউত। এবং আমি পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের কলকাতা শহরে বসবাস করি। বর্তমানে (২০২১ সালে) আমার বয়স ২৪ বছর।

আমি কত পর্যন্ত পড়াশোনা করেছি?

আমি সেকেন্ডারি exam এ ‘Commerce’ নিয়ে পড়াশোনা করার পর, কলকাতার একটি প্রাইভেট কলেজ থেকে BBA (Bachelor of Business Administration) কমপ্লিট করি।

এবং এই BBA কোর্সটি সম্পুর্ণ হওয়ার পর আমি MBA তে এডমিশন নিই। কিন্তু MBA তে আমার মন না লাগার কারণে, ৬ মাসের মধ্যেই আমি এই Course টি ছেড়ে দিই।

আমার জীবনের লক্ষ্য কি ছিল?

প্রথমদিকে আমার জীবনে কোনো লক্ষ্যই ছিল না।

লক্ষ্য বলতে যেগুলো ভাবতাম সেগুলি সবই ছিল ভালোলাগা। যেমন গান করা, আঁকা, মোটিভেশনাল স্পিকার হওয়া এইসব। আমি সেই সময় এগুলোকেই আমার লক্ষ্য ভাবতাম। কিন্তু পরে বুঝতে পারি এগুলি আমার জীবনের আসল লক্ষ্য ছিল না।

আমার জীবনের লক্ষ্য আমি তখন খুজে পাই, যখন আমি BBA কোর্স করার সময় Hostel এ থেকে পড়াশোনা করি। এবং সেই সময় আমার কাছে একটি ল্যাপটপ ছিল।

একদিন ইউটিউব ভিডিও চলাকালীন Blog সম্পর্কে কিছু ভিডিও দেখতে পাই। এবং সেই থেকে আমার নিজস্ব ব্লগ (ওয়েবসাইট) তৈরি করার ইচ্ছা জাগে।

এরপর থেকেই আমার জীবনে Blog ই একমাত্র লক্ষ্য হয়ে দাঁড়ায়।

Blog লক্ষ্য তৈরি করা কি সহজ ছিল?

ইন্টারনেটে আমার একটি নিজস্ব ওয়েবসাইট থাকবে এবং আমি এটি থেকে ভালো পরিমাণ অর্থ আয় করব, এটি ভেবেই আমি আমার লক্ষ্যস্থির করেছিলাম।

এবং লক্ষ্য স্থির করার পর আমি এটা নিয়ে ভাবা শুরু করে দিই যে – আমি Blogging করব না MBA। এরপর Domain এবং Hosting ছাড়াই, blogspot থেকে একটি free blog বানাই।

এবং Over Confident হয়ে গিয়ে আমি MBA ছেড়ে দিই এবং হোস্টেল থেকে বাড়ি চলে আসি।

কিন্তু পরবর্তীকালে কিছু সপ্তাহ যাওয়ার পরে বুঝতে পারি, আমি যে লক্ষ্যটি স্থির করেছি, এই লক্ষ্যটাতে পৌঁছানো খুব একটা সহজ কাজ নয়। এবং এই লক্ষ্যটিতে পৌছানোর জন্য সবথেকে বড় যে জিনিসটির প্রয়োজন সেটি হল ‘ধৈর্য‘।

এবং এখান থেকেই শুরু হয় আমার জীবনের সবথেকে বড় সমস্যা

আমি বাড়ি চলে আসি কিন্তু আমার ব্লগ থেকে তখনো কোন ইনকাম আসছিল না। এবং যেহেতু আমি BBA + MBA তে বাড়ির অনেক টাকা ধ্বংস করে দিয়েছি, তাই বাড়িতেও আমাকে কম কথা শুনতে হয় নি।

আমি College ২০১৭ সালে ছেড়ে দিই কিন্তু ব্লগ থেকে আমি ২০২১ সাল থেকে ইনকাম করা শুরু করি।

আমরা ব্লগিং Journey

প্রথমে আমি ওভার কনফিডেন্স হয়ে কলেজ ছেড়ে দিয়েছিলাম। কিন্তু পরবর্তীকালে যখন জানলাম যে ব্লগিং করা এবং ব্লগিং এ ক্যারিয়ার তৈরি করা খুব একটা সহজ কাজ নয়, তখন আমি ধীরে ধীরে ব্লগিং শিখতে শুরু করি।

এবং ২০১৭ থেকে ২০২০ পর্যন্ত, মোট তিন বছর বিশাল সমুদ্রে, ভাসতে থাকি। কোন দিকে গেলে কূল পাব সেটাই বুঝে উঠতে পারিনি।

কিছুদিন পর, ফেসবুকে কিছু ব্লগিং গ্রুপে জয়েন করি। কিছু মাস যাওয়ার পর ফেসবুক গ্রুপ থেকে একটি ছেলের সাথে আমার পরিচয় হয়।

এবং তার সাথে কথাবার্তা বলতে বলতে আমরা দুজনে বন্ধু হয়ে যাই। এবং পরবর্তীকালে সেই আমাকে blogging শেখাতে শুরু করে।

এরপর সে তার মোবাইল নাম্বারটি আমার সাথে শেয়ার করে। এবং আমি প্রত্যেকদিন তার সাথে এক ঘণ্টা করে কথা বলে ব্লগিং শেখা শুরু করি।

সে আমাকে কোনটির পর কি করতে হবে, কিভাবে earning করতে হবে এই সমস্ত কিছু সম্পর্কে ইনফরমেশন দিতে শুরু করে।

এবং আমি তার ওপর বিশ্বাস করে সমস্ত ইনফরমেশন কালেক্ট করে, ২০২১ সালে নতুন একটি ওয়েবসাইট বানাই। এবং যেটি বর্তমানে খুবই জনপ্রিয় একটি বাংলা ব্লগ। আর তার নাম আপনি বুঝতেই পারছেন – সেটি হল এই Hinditrust

আমি কেন জব খোঁজার চেষ্টা করিনি?

আমি যেহেতু BBA করেছি তাই আমি একটি ভাল চাকরি অবশ্যই পেতাম। কিন্তু আমি কোনদিনও জব খোঁজার চেষ্টা করিনি।

কারণ আমার নিজের উপর বিশ্বাস ছিল যে আমি একদিন অবশ্যই ব্লগ থেকে ভালো পরিমাণ অর্থ আয় করতে পারবো। আর যেটি আমায়, চাকরির থেকেও বেশি টাকা আয় করার সুযোগ দেবে।

কিন্তু যেহেতু আমি ব্লগিং সম্পর্কে শিখতে শুরু করি। এবং ডোমেইন এবং হোস্টিং সম্পর্কে আমার ধারণা তৈরি হয়েছিল। তাই আমি ডোমেইন এবং হোস্টিং কেনার জন্য Potato Cold Storage এ একটি কাজ খুঁজে নিই।

এবং মাসে ৪৫০০ টাকার বিনিময়ে, আমি এই কাজটি ২০১৮ থেকে ২০২১ পর্যন্ত করতে থাকি।

আর আমি এটি মনে মনে ঠিক করে নিয়েছিলাম যেদিন আমার ব্লগ থেকে ৪৫০০ টাকার উপর মাসে ইনকাম শুরু হবে, সেই দিন থেকে আমি আর Potato Cold Storage এ কাজ করবো না।

আপনিই বলুন না –

“যদি আমি বাড়িতে বসে মাসে ৫০০০ টাকার বেশি আয় করি তাহলে আমি কেন ৮ ঘন্টা ডিউটি করে, মাসে ৪৫০০ টাকার কাজ করতে যাব?”

বর্তমানে আমি ব্লগ থেকে যে পরিমাণ আয় করছি, তার মাসিক আয়; কোল্ড স্টোরেজ কাজের থেকে কিছুটা বেশি।

তাই আমি যখন এতটা পরিমাণ আয় করতে সক্ষম হয়েছে, তখন আমি মাসে BBA job এর থেকেও বেশি আয় করতে পারবো। আর এটাই আমার বিশ্বাস।

নিজের উপরে এই বিশ্বাস থাকার কারণে – আমি অন্যদের মতো job competion এ না গিয়ে, আমার Passion বেছে নিয়েছি।

Blog নিয়ে আমার Future Plan কি?

ভবিষ্যতে আমার প্ল্যান হলো, আমি আরও কিছু Blog বানাবো। যেগুলি এক একটি Niche cover করবে। একটি সাইটে শুধুমাত্র একটি Niche নিয়েই কাজ করা হবে।

আর; সাইট গুলি থেকে যে আয় আসবে, সেই টাকা থেকে যেনো একটি Blog Office তৈরি করতে পারি। যেখানে আমি শান্তিপূর্ণ ভাবে কাজ করতে পারবো।

এবং এর সাথে সাথে BBA এবং MBA করতে, আমার যে পরিমাণ টাকা খরচ হয়েছে, সেটি যেনো বাড়ির লোকেদের শোধ করতে পারি।

সর্বশেষে

আশা করছি আপনাদের, আমার নিজের সম্পর্কে লেখাটি ভালো লেগেছে। আজ আমি নিজের সম্পর্কে আপনাদের সাথে এত কিছু শেয়ার করে, অনেক হাল্কা বোধ করছি।

এই আর্টিকেলটি পড়বার জন্য আপনাদের অসংখ্য ধন্যবাদ এবং কেমন লেগেছে এটি অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন।❤️❤️

শেয়ার করতে চান!
  •  
  •  
  •  
  •  

আমি সঞ্জু রাউত। আমার বাড়ি কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ। আমি অন্যকে ইনফরমেশন দিয়ে সাহায্য করতে ভালোবাসি। তাই আমি এই ব্লগটি ওপেন করি, যার দ্বারা আমার সখ এবং অন্যকে সাহায্য দুটোই সম্ভব হয়।

Leave a Comment