সুপার কম্পিউটার কাকে বলে ও জনক কে?

কম্পিউটারের নাম সবাই শুনেছেন এবং ব্যবহারও অনেকে করেন কিন্তু সুপার কম্পিউটারের নামটি অনেক ব্যক্তির অজানা। সুপার কম্পিউটারের দাম এত বেশি যে শুধুমাত্র দেশের বিশেষ বিশেষ কিছু ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়।

যদি আপনি সুপার কম্পিউটার সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চান, তাহলে এই আর্টিকেলটি আপনাকে সাহায্য করবে।

আজ আপনি এখান থেকে সুপার কম্পিউটার কাকে বলে, সুপার কম্পিউটারের জনক কে এবং সুপার কম্পিউটারের কাজ এবং বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবেন। তাই চলুন দেরী না করে সুপার কম্পিউটার সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

সুপার কম্পিউটার কি?

সুপার কম্পিউটার হল পৃথিবীর সবথেকে গতি সম্পন্ন এক ধরনের কম্পিউটার। এই ধরনের কম্পিউটার ডাটা কে প্রচন্ড গতিতে প্রসেস করতে পারে।

একটি সুপার কম্পিউটারের মধ্যে হাজারেরও বেশি প্রসেসর থাকে। যার মাধ্যমে সুপারকম্পিউটার একসাথে অসংখ্য ডাটা নিয়ে কাজ করতে পারে।

অর্থাৎ সুপার কম্পিউটারের ক্ষমতা যে কোন সাধারণ কম্পিউটার এর থেকে অনেক বেশি।

এই ধরনের কম্পিউটার সাধারণত বৈজ্ঞানিক এবং ইঞ্জিনিয়াররা ব্যবহার করে থাকে।

প্রথম সুপার কম্পিউটারটি 12 এপ্রিল, 1964 সালে সম্পন্ন হয়েছিল। এবং এই ধরনের কম্পিউটার একসাথে অনেকগুলো কাজ করতে পারে।

সুপার কম্পিউটার কাকে বলে?

হাই লেভেল প্রসেসরযুক্ত কম্পিউটার, যেগুলিতে একসাথে অসংখ্য কাজ খুব দ্রুতগতিতে করা যায় এবং এক সাথে অসংখ্য ব্যক্তি কাজ করতে পারে সেই সকল কম্পিউটার গুলিকে বলা হয় সুপার কম্পিউটার।

সুপার কম্পিউটার কে আবিষ্কার করেন?

Seymour Cray নামক এক ব্যাক্তির অবদান সুপার কম্পিউটার আবিষ্কারের পেছনে সবথেকে বেশি। এইজন্য Seymour Cray কে সুপার কম্পিউটারের জনক হিসেবে ধরা হয়।

সুপার কম্পিউটার ব্যাবহার

সুপার কম্পিউটারের ব্যবহার জ্যোতির্পদার্থবিদ্যা এবং আণবিক বিজ্ঞানের মতো গবেষণার উদ্দেশ্যে করা হয়। এছাড়া ইঞ্জিনিয়ারিং এবং ডিজাইনেও ব্যবহৃত হয়।

এছাড়াও উন্নতমানের গ্রাফিক্স এবং অ্যানিমেশনের কাজে, তেল এবং গ্যাস অনুসন্ধানের ক্ষেত্রে, গবেষণা ও উন্নয়ন কাজে সুপার কম্পিউটার ব্যবহার করা হয়।

অর্থাৎ, উচ্চ-পারফরম্যান্স কম্পিউটিং যে সকল জায়গায় প্রয়োজন হয় সেই সকল ক্ষেত্রে সুপার কম্পিউটার ব্যাবহার করা হয়।

সুপার কম্পিউটার কিভাবে কাজ করে?

সুপারকম্পিউটার হল অধিক মেমরি যুক্ত এবং অপেক্ষাকৃত দ্রুত প্রক্রিয়াকরণ ইউনিট সহ এক ধরনের কম্পিউটার।

গণনার গতি ব্যাপকভাবে বাড়ানোর জন্য, এটি সমান্তরাল প্রক্রিয়াকরণের মাধ্যমে কাজ করে থাকে।

সাধারণ কম্পিউটারকে একই সময়ে একটি ইন্সট্রাকশন দেওয়ার জন্য সেটি একটি মাত্র কাজ সম্পন্ন করতে পারে। অর্থাৎ সাধারণ কম্পিউটার সিরিয়াল প্রক্রিয়াকরণের (serial processing) মাধ্যমে কাজ করে।

কিন্তু সুপার কম্পিউটারের একটি প্রসেসরকে সমান্তরাল প্রক্রিয়াকরণের (parallel processing) মাধ্যমে একসাথে অসংখ্য নির্দেশ দেওয়া যায়। এবং এই কারণে সুপারকম্পিউটার একসাথে অসংখ্য কাজ করতে পারে।

সুপার কম্পিউটার বৈশিষ্ট্য

  • সুপার কম্পিউটারের মাধ্যমে একসাথে একশ জনের বেশী মানুষ কাজ করতে পারে।
  • একটি সুপার কম্পিউটারের মধ্যে একের বেশি cpu থাকে।
  • প্রচন্ড দ্রুতগতিতে যে কোন কাজ করা যায়।
  • প্রচুর পরিমাণে গণনামূলক ক্রিয়াকলাপ সম্পাদন করতে ব্যবহৃত হয়।
  • একটি সুপার কম্পিউটারের কর্মক্ষমতা FLOPS-এ পরিমাপ করা হয়।

সুপার কম্পিউটার এর দাম কত?

সুপার কম্পিউটারের দাম অনেক বেশি। এনইসি ইন-হাউস দ্বারা নির্মিত সুপারকম্পিউটারগুলি $100,000 এরও বেশি দামে কিনতে হয়। এগুলি হল সবথেকে নিম্ন মনের মডেল। এরপর আরোও খরচ করলে ভালো মানের কম্পিউটার গুলি পাবেন।

উপসংহার

আশা করি আজকের এই ইনফরমেশন থেকে সুপার কম্পিউটার কি এবং সুপার কম্পিউটার কে আবিষ্কার করেন এই সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পেরেছেন। যদি সুপার কম্পিউটার সম্পর্কে আরো কিছু জানার থাকে তাহলে আপনি কমেন্ট করে আমাদের জানাতে পারেন। ধন্যবাদ ভালো থাকবেন।

Sanju

আমি সঞ্জু রাউত। আমার বাড়ি কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ। আমি অন্যকে ইনফরমেশন দিয়ে সাহায্য করতে ভালোবাসি। তাই আমি এই ব্লগটি ওপেন করি, যার দ্বারা আমার সখ এবং অন্যকে সাহায্য দুটোই সম্ভব হয়।

Leave a Comment